সংবাদ শিরোনাম :
সংবাদ শিরোনাম :
দীর্ঘ যানজটে নাকাল যাত্রী ও চালক – গ্রামীন নিউজ২৪ লালমনিরহাটে দায়ের কোপে বৃদ্ধা মা রক্তাক্ত, ছেলে গ্রেফতার – গ্রামীন নিউজ২৪ গোবিন্দগঞ্জে ইয়াবা, পিস্তল ও এক রাউন্ড গুলিসহ এক মাদক কারবারী আটক – গ্রামীন নিউজ২৪ আজকে বিশ্ব করোনার আঘাতে বিপর্যস্ত – গ্রামীন নিউজ২৪ হেলেনা জাহাঙ্গীরের বিরুদ্ধে পল্লবী থানায় মামলা করেছে র‍্যাব – গ্রামীন নিউজ২৪ সাদুল্লাপুরে ইউএনও, ওসি’র বিদায়ী সংবর্ধনা – গ্রামীন নিউজ২৪ দূরপাল্লার গাড়ি না চলায়,ভোগান্তিতে শ্রমিকরা – গ্রামীন নিউজ২৪ করোনায় আবারো মৃত্যু ২১৮ – গ্রামীন নিউজ২৪ সুন্দরবনে স্মার্ট টিমের অভিযানে ১৩ টি নৌকা আটক – গ্রামীন নিউজ২৪ ডুমুরিয়ায় প্রতিটি ঘরে বিদ্যুতের আলোয় আলোকিত —ডিজিএম মোঃ আবদুল মতিন – গ্রামীন নিউজ২৪
বিজ্ঞপ্তি :
আমাদের সাইটের উন্নয়ন মূলক কাজ চলছে... সাথেই থাকুন! গ্রামীন নিউজ২৪টিভি পরিবারের জন্য দেশব্যাপী প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে। আগ্রহীরা যোগাযোগ করুন 01729188818, সিভি ইমেইল করুনঃ grameennews24tv@gmail.com

ঢাকা প্রিমিয়ার লিগ টি-টোয়েন্টি আসরের শিরোপা আবাহনীর – গ্রামীন নিউজ২৪

খেলাধুলা ডেস্কঃ / ৭৮৬৭ বার পঠিত
প্রকাশের সময় : শনিবার, ২৬ জুন, ২০২১, ২:৪০ অপরাহ্ন

আবাহনী লিমিটেড জিতে নিল ঢাকা প্রিমিয়ার লিগ টি-টোয়েন্টি আসর। সুপার লিগের শেষ ম্যাচে প্রাইম ব্যাংককে হারিয়ে পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষস্থানে থাকায়, এবারও শিরোপা উঠছে তাদের ঘরে।

প্রাইমকে ৮ রানে হারিয়েছে আবাহনী। শুরুতে ব্যাট করতে নির্ধারিত ওভারে ৭ উইকেট হারিয়ে ১৫০ রান সংগ্রহ করে আবাহনী। জবাব দিতে নেমে ১৪২ রানে থামে প্রাইম ব্যাংক।

মিরপুরে ব্যাট করতে নেমে শুরুতেই উইকেট হারায় আবাহনী। ইনিংসের ১ম বলেই নাঈম শেখকে আউট করেন পেসার মুস্তাফিজুর রহমান।
আরেক ওপেনার মুনিম শাহরিয়ারও বেশিক্ষণ টেকেননি। তিনি আউট হন ৩ রান করে।

লিটন দাসের সংগ্রহ ১৯ রান। তবে নাজমুল শান্তকে নিয়ে হাল ধরেন অধিনায়ক মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত। দু’জনই দারুণ ব্যাটিং করে গড়েন ৭০ রানের জুটি। তবে ফিফটির দেখা পান নি কেউই। শান্ত আউট হন ৪৫ রান করে। সৈকত করেন ৪০ রান।

শেষদিকে সাইফউদ্দিনের ঝোড়ো ২১ রানের সুবাদে ১৫০ রানের সংগ্রহ পায় আবাহনী।

জবাব দিতে নেমে মাত্র ১ রান করে আউট হয়ে যান প্রাইম ওপেনার রনি তালুকদারও। তবে রুবেল মিয়া খেলেন ৪১ রানের ইনিংস। যদিও তার ইনিংসটিকে ঠিক টি-টোয়েন্টিসুলভ বলা যাবে না। ৪১ রান করতে খেলেছেন ৪৩টি বল।

আরো একবার ব্যর্থ প্রাইমের অধিনায়ক এনামুল বিজয়। মিঠুন-রাকিবুল কেউই পারেন নি হাল ধরতে। শেষদিকে ১৭ বলে ৩৪ রানের একটি টর্নেডো ইনিংস খেলে সম্ভাবনা জাগিয়েছিলেন অলক কাপালী। তবে অন্যদের সমর্থন না পাওয়ায়, তার ইনিংসটি ব্যর্থ হয়।
ব্যাট হাতে অপরাজিত ২১ রান করার পর বল হাতেও ৪ উইকেট তুলে নেন সাইফউদ্দিন। ফলে ম্যাচসেরার পুরস্কার উঠেছে এই অলরাউন্ডারের হাতে।

এ নিয়ে ১৬ ম্যাচ শেষে ২৪ পয়েন্ট নিয়ে চ্যাম্পিয়ন হলো আবাহনী। অন্যদিকে ১ ম্যাচ কম জেতা প্রাইমের পয়েন্ট ২২।


এ জাতীয় আরো সংবাদ
এক ক্লিকে বিভাগের খবর