সংবাদ শিরোনাম :
সংবাদ শিরোনাম :
সুন্দরবনের দুই জীবন্ত কিংবদন্তি – গ্রামীন নিউজ২৪ বাগমারায় পানিতে ডুবে এক শিশুর মৃত্যু – গ্রামীন নিউজ২৪ লকডাউনে ‘ডোরস্টেপ ডেলিভারি’দিচ্ছে ভিভো হটলাইনে কল করলেই পৌঁছে যাবে ভিভো স্মার্টফোন – গ্রামীন নিউজ২৪ ঠাকুরগাঁওয়ে বালিয়াডাঙ্গীতে মসজিদ উন্নয়নের জন্য অনুদান দিলেন এমপি পুত্র – গ্রামীন নিউজ২৪ দেশে আইপি টিভির অনুমোদন নেই তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী হাছান মাহমুদ – গ্রামীন নিউজ২৪ করোনায় ২৪৬ জনের মৃত্যু – গ্রামীন নিউজ২৪ ঠাকুরগাঁওয়ে ৩ কেজি গাঁজা উদ্ধার ও ভ্রাম্যমাণ আদালতে সাজা – গ্রামীন নিউজ২৪ কয়রায় ভারী বর্ষনে রোপা আমন মৌসুমের বীজতলা নষ্ট হয়ে কৃষকের ব্যাপক ক্ষতি – গ্রামীন নিউজ২৪ করোনায় ক্ষতিগ্রস্তদের মাঝে এফডিএ’র ত্রাণ সহায়তা – গ্রামীন নিউজ২৪ শিবগঞ্জে নিখোঁজ গৃহবধূর লাশ ভাসছিল পুকুরে – গ্রামীন নিউজ২৪
বিজ্ঞপ্তি :
আমাদের সাইটের উন্নয়ন মূলক কাজ চলছে... সাথেই থাকুন! গ্রামীন নিউজ২৪টিভি পরিবারের জন্য দেশব্যাপী প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে। আগ্রহীরা যোগাযোগ করুন 01729188818, সিভি ইমেইল করুনঃ grameennews24tv@gmail.com

আমির খান কিরন রাওয়ের সংসার জীবনের ইতি – গ্রামীন নিউজ২৪

বিনোদন ডেস্কঃ / ৮৯১ বার পঠিত
প্রকাশের সময় : শনিবার, ৩ জুলাই, ২০২১, ১:৪৪ অপরাহ্ন

ভারতের সুপারস্টার আমির খান ও প্রযোজক কিরণ রাওয়ের সংসার জীবনের ইতি ঘটেছে। আজ শনিবার (৩ জুলাই) তারা যৌথভাবে একটি বিবৃতি দিয়ে বিবাহবিচ্ছেদের ঘোষণা দেন। আর এই ঘোষনার ফলে তাদের ১৫ বছরের সংসার জীবনের ইতি ঘটলো।

আমির ও কিরণ তাদের বিবৃতিতে বলেন, ‘এই সুন্দর ১৫টি বছর আমরা একসঙ্গে কাটিয়ে আজীবন মনে রাখার মতো কিছু অভিজ্ঞতা ও আনন্দ সঞ্চয় করেছি। আমাদের সম্পর্ক গড়ে উঠেছিল কেবল বিশ্বাস, সম্মান ও ভালোবাসা থেকে। আমরা এখন জীবনের নতুন একটি অধ্যায় শুরু করতে চাই। তবে সেটা স্বামী-স্ত্রী হয়ে নয়; বরং সন্তানের পিতা-মাতা এবং পরিবার হয়ে।’

এই বক্তব্য থেকে ধারণা করা যায়, আমির খান ও কিরণের মধ্যে অতীতে যেই বিশ্বাস, ভালোবাসা ও সম্মানবোধ ছিলো, তাতে ঘাটতি দেখা দিয়েছে। সে কারণেই হয়ত তারা বিচ্ছেদের পথ বেছে নিলেন। এছাড়া পারিবারিক জীবনে তারা সুখী ছিলেন না বলেই হয়তো এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।

বিচ্ছেদের পরিকল্পনার কথা জানিয়ে তারা বলেন, আমরা বেশ কিছু দিন ধরেই বিচ্ছেদের পরিকল্পনা করছিলাম। অবশেষে এখন সিদ্ধান্তটিকে বাস্তবে রূপ দেওয়ায় স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করছি। আলাদা হয়ে গেলেও আমরা আজাদের (সন্তান) জন্য একনিষ্ঠ বাবা-মা হয়ে থাকব। সে আমাদের দু’জনের কাছেই বেড়ে উঠবে।’


এ জাতীয় আরো সংবাদ
এক ক্লিকে বিভাগের খবর