সংবাদ শিরোনাম :
সংবাদ শিরোনাম :
লালমনিরহাটে দায়ের কোপে বৃদ্ধা মা রক্তাক্ত, ছেলে গ্রেফতার – গ্রামীন নিউজ২৪ গোবিন্দগঞ্জে ইয়াবা, পিস্তল ও এক রাউন্ড গুলিসহ এক মাদক কারবারী আটক – গ্রামীন নিউজ২৪ আজকে বিশ্ব করোনার আঘাতে বিপর্যস্ত – গ্রামীন নিউজ২৪ হেলেনা জাহাঙ্গীরের বিরুদ্ধে পল্লবী থানায় মামলা করেছে র‍্যাব – গ্রামীন নিউজ২৪ সাদুল্লাপুরে ইউএনও, ওসি’র বিদায়ী সংবর্ধনা – গ্রামীন নিউজ২৪ দূরপাল্লার গাড়ি না চলায়,ভোগান্তিতে শ্রমিকরা – গ্রামীন নিউজ২৪ করোনায় আবারো মৃত্যু ২১৮ – গ্রামীন নিউজ২৪ সুন্দরবনে স্মার্ট টিমের অভিযানে ১৩ টি নৌকা আটক – গ্রামীন নিউজ২৪ ডুমুরিয়ায় প্রতিটি ঘরে বিদ্যুতের আলোয় আলোকিত —ডিজিএম মোঃ আবদুল মতিন – গ্রামীন নিউজ২৪ মোংলায় সরকারি নির্দেশনা না মানায় জরিমানা আদায় – গ্রামীন নিউজ২৪
বিজ্ঞপ্তি :
আমাদের সাইটের উন্নয়ন মূলক কাজ চলছে... সাথেই থাকুন! গ্রামীন নিউজ২৪টিভি পরিবারের জন্য দেশব্যাপী প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে। আগ্রহীরা যোগাযোগ করুন 01729188818, সিভি ইমেইল করুনঃ grameennews24tv@gmail.com

কুড়িগ্রামে মাকে বাঁচাতে গিয়ে প্রতিবন্ধী ছেলে খুন – গ্রামীন নিউজ২৪

স্টাফ রিপোর্টারঃ / ৯৩০ বার পঠিত
প্রকাশের সময় : বুধবার, ১৪ জুলাই, ২০২১, ৩:১৮ অপরাহ্ন

কুড়িগ্রাম সদর উপজেলার কাচিরচরে এক প্রতিবন্ধী যুবককে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। ভোগডাঙ্গা ইউনিয়নের মেম্বার মা ছলিমা বেগমকে বাঁচাতে গিয়ে আজ বুধবার (১৪ জুলাই) সকালে এ হত্যাকাণ্ডের শিকার হন জাহিদ হাসান (১৮) নামের এক প্রতিবন্ধী যুবক।

মা হাসপাতালের বেডে অসহ্য যন্ত্রণায় কাতরাচ্ছেন আর ছেলের লাশ পড়ে আছে হিমঘরে। পুলিশ অভিযান চালিয়ে ঘাতক কাজল খান কাশেমকে আটক করেছে। এলাকায় বিরাজ করছে থমথমে অবস্থা।

আহত ভোগডাঙ্গা ইউনিয়নের ৭, ৮ ও ৯নং ওয়ার্ডের সংরক্ষিত মেম্বার ছলিমা বেগম জানান, আজ বুধবার সকালে তার বাড়িতে ভিজিএফের চাল পেতে বিভিন্ন এলাকার নারীরা আসেন। অভিযুক্ত ঘাতক কাজল খান কাশেম আর তার বাড়ি মুখোমুখি। দুই বাড়ির মাঝখানে রাস্তা। লোকজনের কোলাহলে তার ঘুম ভেঙে যায়।

সকাল সাড়ে ৭টায় এই অজুহাতে বাড়ি থেকে কাঠ এনে আমাকে রাস্তার ওপর পেটাতে থাকে। আমি মাটিতে লুটিয়ে পড়লে প্রতিবন্ধী ছেলে জাহিদ হাসান আমাকে জড়িয়ে ধরে বাঁচানোর চেষ্টা করে। এ সময় কাশেম জাহিদকে এলোপাতাড়ি মারপিট করে।

তিনি জানান, ঘটনাস্থলে জাহিদ লুটিয়ে পড়ে। কান দিয়ে রক্ত বের হয়। সংজ্ঞাহীন হয়ে পড়ে। আমারও মাথা ফেটে রক্ত পড়তে থাকে। পরে প্রতিবেশীরা আমাদের হাসপাতালে ভর্তি করেন। তিনি আরও জানান, আগে থেকেই কাশেমের সঙ্গে রাস্তা নিয়ে তার বিরোধ ছিল। এই বিরোধকে কাজে লাগিয়ে আমার অসুস্থ ছেলেটাকে পিটিয়ে হত্যা করল। আমি এর বিচার চাই।

কুড়িগ্রাম সদর থানার ওসি খান মোহাম্মদ শাহরিয়ার এসব তথ্য নিশ্চিত করে গনমাধ্যমকে জানান, কুড়িগ্রাম সার্কেল অফিসার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার উৎপল কুমার রায় ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে ঘটনাস্থলে মোতায়েন করা হয়েছে পুলিশ। বর্তমান পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রয়েছে। হত্যা মামলার প্রস্তুতি চলছে। ময়নাতদন্ত করে স্বজনদের হাতে লাশ হস্তান্তর করা হবে।


এ জাতীয় আরো সংবাদ
এক ক্লিকে বিভাগের খবর