সংবাদ শিরোনাম :
সংবাদ শিরোনাম :
সাতক্ষীরা ১৮ মাস পর পানিমুক্ত হলো সাতক্ষীরার চারটি গ্রাম – গ্রামীন নিউজ২৪ ওয়ানডে বিশ্বকাপের মূলপর্বে জায়গা পেল  বাংলাদেশ নারী ক্রিকেট দল – গ্রামীন নিউজ২৪ একটি বাস দিয়ে নিজের সংসার চালায় কেউ কেউ – গ্রামীন নিউজ২৪ সাতক্ষীরার দেবহাটা ও কালিগঞ্জ উপজেলায় আওয়ামী লীগের ৯নেতা বহিস্কার – গ্রামীন নিউজ২৪ তাহিরপুরে বিআইডব্লিওটিএর নামে চাঁদাবাজী বন্ধের প্রতিবাদে ধর্মঘট ও মানববন্ধন – গ্রামীন নিউজ২৪ পঞ্চম ধাপের তফসিল ঘোষণা করেছে নির্বাচন কমিশন – গ্রামীন নিউজ২৪ মোংলায় সহিংস উগ্রবাদ প্রতিরোধে মতবিনিময় সভা – গ্রামীন নিউজ২৪ মুম্বাইয়ে সন্ত্রাসী হামলায় নিহতদের স্মরণে শাহবাগে মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চের মোমবাতি প্রজ্বলন – গ্রামীন নিউজ২৪ ঠাকুরগাঁওয়ে হরিপুরে বিলুপ্তপ্রায় নীলগাই উদ্ধারের পরে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যু – গ্রামীন নিউজ২৪ শ্যামনগরের শিশু ধর্ষন মামলার পলাতক আসামী র‌্যাবের হাতে আটক – গ্রামীন নিউজ২৪
বিজ্ঞপ্তি :
গ্রামীন নিউজ২৪টিভি পরিবারের জন্য দেশব্যাপী প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে। যোগ্যতা এইচ এসসি পাশ, অভিজ্ঞতাঃ ১ বৎসর, আগ্রহীরা যোগাযোগ করুন 01729188818, সিভি ইমেইল করুনঃ grameennews24tv@gmail.com

গড়ে উঠছে বিরামপুরে এ্যাকোয়া থিম বিনোদন পার্ক – গ্রামীন নিউজ২৪

মোসলেম উদ্দিন, হিলি দিনাজপুর প্রতিনিধিঃ / ১৩৪৩ বার পঠিত
প্রকাশের সময় : মঙ্গলবার, ১২ অক্টোবর, ২০২১, ১১:৩৭ পূর্বাহ্ন

দর্শনার্থী ও বিনোদন পিয়াসুদের জন্য ৪০ বিঘা জমির উপর নির্মাণ হচ্ছে এ্যাকোয়া থিম বিনোদন পার্ক। দিনাজপুরের বিরামপুর উপজেলার মির্জাপুর নামক মহাসড়ক সংলগ্নে এই বিনোদন পার্কটির নির্মাণ কাজ চলছে। উপজেলা চেয়ারম্যান খায়রুল আলম রাজু পার্কটির কর্ণধার। আগামী ডিসেম্বর মাসে পার্কটি উদ্বোধন হতে যাচ্ছে। এই বিনোদনকেন্দ্রটি হবে প্রায় এক হাজার মানুষের কর্মসংস্থান।

এ্যাকোয়া থিম বিনোদনকেন্দ্রটি ঘুরে জানা যায়, দুই বছর আগে শুরু হয় পার্কটির নির্মাণ কাজ। ৫০ শতাংশ কাজ শেষ হয়েছে, আগামী আড়াই থেকে তিন মাসের মধ্যে বাঁকি কাজ সম্পূর্ণ হবে। বিনোদন পার্কটি দিনাজপুর-ঢাকা মহাসড়কের বিরামপুরে তৈরি হচ্ছে। যেখানে সহজেই দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে দর্শনার্থী ও বিনোদনপ্রেমিরা আসতে পারবে।

বিনোদন পার্কটিতে নির্মান হচ্ছে প্রধান গেট, সেখানে থাকবে পানির ফুয়ারা। পার্কটিতে গাড়ি রাখার পার্কিং, চলাচলের সুন্দর রাস্তা তৈরি হয়েছে। শিশুদের জন্য রয়েছে আধুনিক বাইটস, দোলনা, স্নাইড ও স্নিপার সাইকেল খেলনা। ছোট-বড় সবার জন্য সুমিংপুল সহ কটেজ তিনটি আছে। তবে সুমিংপুল ও ওয়েব পুলের কাজ চলমান। লেকের সঙ্গে আছে পেটেল ও স্প্রীট বোর্ড এবং পানির ফুয়ারা। পুরো পার্কে রয়েছে কার্পেট বিছানো রাস্তা। যার দুপাশে আছে বিভিন্ন জাতের ফুল আর পাতাবাহারের গাছ। যা দেখলে প্রকৃতিপ্রেমিরা মুগ্ধ হবে। পার্কের রাস্তা এবং গাছের নিচে আছে বসার চেয়ার। বিনোদনকেন্দ্রটির বিভিন্ন স্থানে আছে রয়েল বেঙ্গল টাইগার, জেব্রা, বনমানুষ, ঘোড়া, কুমির, জলপরী, পরী ও নারী সহ বিভিন্ন জীবজন্তুর মুর্তি। যা দেখে বিনোদন পিয়াসুরা সহজেই আকৃষ্ট হবে।

 

কর্তৃপক্ষ আড়াই থেকে তিন কোটি টাকা ব্যয়ে নির্মান করবেন পার্কটি। ৯০ লাখ থেকে প্রায় ১ কোটি টাকা খরচ হয়ে গেছে পার্কটি নির্মান করতে। এখনও দেড় থেকে দুই কোটি টাকার কাজ বাঁকি আছে। কয়েকটি ব্যাংক ঋণ নিয়েও কাজ করছেন এই কর্তৃপক্ষ, তবে সরকারি সহযোগীতা পেলে অচিরে একটি সুনামধন্য বিনোদন পার্কে পরিণত করতে পারবেন কর্তৃপক্ষ।

এ্যাকোয়া থিম পার্কের ইঞ্জিনিয়ার হামিদ বলেন, আমি এখানে প্রায় ১৮ মাস থেকে কাজ করে আসছি। এই পার্কের সব ডিজাইন এবং গ্রীলের ও সুইমিংপুলের কাজ করছি।

পার্কের মালি মিজানুর রহমান বলেন, এ্যাকোয়া থিম পার্কের বিভিন্ন প্রকার ফুল ও পাতাবাহারের গাছ লাগাচ্ছি। এখানে দেশি-বিদেশি বিভিন্ন জাতের ফুল ও পাতাবাহারের গাছ লাগিয়েছি। পার্কটিকে দৃশ্যমান করতে আমরা আৎপ্রাণ চেষ্টা করছি।

পার্কের রাজমিস্ত্রী মোবারক হোসেন বলেন, দীর্ঘদিন যাবৎ আমরা এই পার্ক নির্মাণ কাজ করছি।

এ্যাকোয়া থিম পার্কের জেনারেল ম্যানেজার নজির উদ্দিন বলেন, বিরামপুর একটি বড় শহর, বাংলাদেশের যে কোন স্থান থেকে এখানে আসা সহজ। কিন্তু এখানে তেমন কোন বিনোদন পার্ক নেই। তাই কর্তৃপক্ষ মানুষের বিনোদনের জন্য এই এ্যাকোয়া থিম পার্ক গড়ে তোলার পরিকল্পনা হাতে নিয়েছেন। এই বিনোদনকেন্দ্রটি একেবারে মহাসড়ক সংলগ্ন, সহজেই সবাই আসতে পারবে। এখানে গাড়ি রাখার সুব্যবস্থা রয়েছে। এছাড়াও এই পার্কের এমডি খায়রুল আলম রাজু মহোদয়ের আগামীতে একটি উন্নতমানের হোটেল নির্মাণের পরিকল্পনা রয়েছে।

  • আমাদের ইউটিউব পেজ ভিজিট করতে লগইন করুনঃ Grameen news24 Tv

এ জাতীয় আরো সংবাদ
এক ক্লিকে বিভাগের খবর