সংবাদ শিরোনাম :
সংবাদ শিরোনাম :
সাতক্ষীরা ১৮ মাস পর পানিমুক্ত হলো সাতক্ষীরার চারটি গ্রাম – গ্রামীন নিউজ২৪ ওয়ানডে বিশ্বকাপের মূলপর্বে জায়গা পেল  বাংলাদেশ নারী ক্রিকেট দল – গ্রামীন নিউজ২৪ একটি বাস দিয়ে নিজের সংসার চালায় কেউ কেউ – গ্রামীন নিউজ২৪ সাতক্ষীরার দেবহাটা ও কালিগঞ্জ উপজেলায় আওয়ামী লীগের ৯নেতা বহিস্কার – গ্রামীন নিউজ২৪ তাহিরপুরে বিআইডব্লিওটিএর নামে চাঁদাবাজী বন্ধের প্রতিবাদে ধর্মঘট ও মানববন্ধন – গ্রামীন নিউজ২৪ পঞ্চম ধাপের তফসিল ঘোষণা করেছে নির্বাচন কমিশন – গ্রামীন নিউজ২৪ মোংলায় সহিংস উগ্রবাদ প্রতিরোধে মতবিনিময় সভা – গ্রামীন নিউজ২৪ মুম্বাইয়ে সন্ত্রাসী হামলায় নিহতদের স্মরণে শাহবাগে মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চের মোমবাতি প্রজ্বলন – গ্রামীন নিউজ২৪ ঠাকুরগাঁওয়ে হরিপুরে বিলুপ্তপ্রায় নীলগাই উদ্ধারের পরে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যু – গ্রামীন নিউজ২৪ শ্যামনগরের শিশু ধর্ষন মামলার পলাতক আসামী র‌্যাবের হাতে আটক – গ্রামীন নিউজ২৪
বিজ্ঞপ্তি :
গ্রামীন নিউজ২৪টিভি পরিবারের জন্য দেশব্যাপী প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে। যোগ্যতা এইচ এসসি পাশ, অভিজ্ঞতাঃ ১ বৎসর, আগ্রহীরা যোগাযোগ করুন 01729188818, সিভি ইমেইল করুনঃ grameennews24tv@gmail.com

প্রার্থী বদলাবেনা আওয়ামী লীগ – গ্রামীন নিউজ২৪

গ্রামীন নিউজ ডেস্কঃ / ২৫৯০ বার পঠিত
প্রকাশের সময় : বৃহস্পতিবার, ২৮ অক্টোবর, ২০২১, ৯:২৯ পূর্বাহ্ন

আওয়ামী লীগ তৃতীয় ধাপের আসন্ন ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে মনোনীত চেয়ারম্যান প্রার্থী বদল করবে না। তৃণমূলের অভিযোগ প্রমাণিত না হওয়ায় এ সিদ্ধান্ত নিয়েছে দলটি। তৃণমূল থেকে আসা দুই শতাধিক অভিযোগ গত দুই দিন ধানমন্ডিস্থ আওয়ামী লীগ সভানেত্রীর রাজনৈতিক কার্যালয়ে যাচাই-বাছাই করেন কেন্দ্রীয় নেতারা। প্রাথমিকভাবে ১৬ প্রার্থী বদল করার উদ্যোগও নেওয়া হয়েছিল। তবে অধিকতর তদন্তে অভিযোগ প্রমাণিত হয়নি বলে দাবি করেছে আওয়ামী লীগ। দলীয় সূত্র এ তথ্য নিশ্চিত করেছে।

এদিকে আওয়ামী লীগ মনোনীত বিতর্কিত প্রার্থীদের বদল না করায় দলটির তৃণমূলে ক্ষোভ বাড়ছে। কেন্দ্রে লিখিত অভিযোগ দিয়েও প্রতিকার না পেয়ে অনেকে বিক্ষোভ মিছিল, সমাবেশ, মানববন্ধন, সংবাদ সম্মেলনসহ নানা প্রতিবাদমূলক কর্মসূচি পালন করছেন। একই সঙ্গে কেন্দ্রীয় নির্দেশনা উপেক্ষা করে বিদ্রোহী প্রার্থী হচ্ছেন অনেকে। আগামী ১১ নভেম্বর অনুষ্ঠিতব্য দ্বিতীয় ধাপের ৮৪৬ ইউপিতে চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী সাত শতাধিক। আগামী ২৮ নভেম্বর তৃতীয় ধাপের ইউপি নির্বাচনেও বিদ্রোহী প্রার্থী হচ্ছেন হাজারেরও বেশি। বিদ্রোহী হলে বহিষ্কারের হুঁশিয়ারিও আমলে নিচ্ছেন না অনেকে।

জানা গেছে, প্রথম ও দ্বিতীয় ধাপের মতো তৃতীয় ধাপের ইউপি নির্বাচনেও আওয়ামী লীগ মনোনীত অনেক প্রার্থীর বিরুদ্ধে তৃণমূলের নেতারা কেন্দ্রে লিখিত অভিযোগ জমা দেন। তৃণমূল নেতারা দল মনোনীত প্রার্থীদের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ করে বলেন, অনেক ক্ষেত্রেই নৌকার মনোনয়ন পেয়ে গেছেন স্বাধীনতাবিরোধী পরিবারের সন্তান, বিএনপি-জামায়াত থেকে আসা নব্য আওয়ামী লীগাররা। এছাড়া হত্যা মামলার আসামি, ভূমিদস্যু, ভিজিএফের চাল চোর, সরকারি অর্থ আত্মসাৎকারী, চাঁদাবাজি, হত্যা ও নারী নির্যাতন মামলার আসামিরাও পেয়েছেন নৌকার মনোনয়ন। এ প্রসঙ্গে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের এমপি বলেন, আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরাই এখন একে অপরের দিকে ‘রাজাকার’-এর তকমা লাগানোর চেষ্টা করছেন। এসব অভিযোগের স্তূপ হয়ে গেছে পার্টি অফিসে। বুধবার রাজধানীর সোনারগাঁও হোটেল এক অনুষ্ঠানে দেওয়া বক্তব্যে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে দলীয় মনোনয়ন দেওয়ার বিষয়টিকে ‘দুর্বিষহ’ আখ্যায়িত করেন আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক। ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘যার সঙ্গে তার বনবে না, তাকে বলবে রাজাকারের ছেলে। অথবা বলবে রাজাকারের নাতি বা শান্তি কমিটির সদস্য ছিল তারা। এসব অভিযোগ করে একজন আরেক জনের প্রতিপক্ষকে (আওয়ামী লীগের এক মনোনয়নপ্রত্যাশী আরেক মনোনয়ন প্রত্যাশীকে) ঘায়েল করছে।

দলীয় সূত্রে জানা গেছে, বিএনপি ধানের শীষ প্রতীক নিয়ে নির্বাচনে না থাকলেও আওয়ামী লীগের যেন বিদ্রোহী প্রার্থী না থাকে সেদিকে বিশেষ গুরুত্ব দিতে বলেছেন দলের হাইকমান্ড। তৃণমূলের নেতাকর্মীদের মাঝে ক্ষোভ-বিক্ষোভ যা-ই থাকুক সবাইকে নৌকার পক্ষে কাজ করতেও নির্দেশনা দিয়েছে আওয়ামী লীগের স্থানীয় সরকার জনপ্রতিনিধি মনোনয়ন বোর্ড। এরমধ্যে ৮৯টি ইউপিতে প্রার্থিতা উন্মুক্ত রেখেছে আওয়ামী লীগ। প্রথম ধাপের ৮টি ও দ্বিতীয় ধাপের ৮১ ইউপিতে নৌকার কোনো প্রার্থী নেই। তবে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে এই ৮৯ ইউপিতে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন আওয়ামী লীগের অনেক নেতা।

তৃণমূল নেতাকর্মীদের অনেকের অভিযোগ, বিতর্কিতরা মনোনয়ন নিশ্চিত করতে জেলা ও কেন্দ্রীয় একশ্রেণির নেতাদের ‘ম্যানেজ’ করেছেন। এ কারণে মনোনয়ন বোর্ডের কাছে সঠিক তথ্য যায়নি। কোনো কোনো ইউপিতে ত্যাগীদের বাদ দিয়ে বিতর্কিতদের একক প্রার্থী হিসেবে তৃণমূল থেকে কেন্দ্রে প্রস্তাব পাঠানো হয়েছে। এ কারণে তারা মনোনয়ন পেয়েছেন।

প্রার্থী পরিবর্তন না করলে গণপদত্যাগের ঘোষণা
লক্ষ্মীপুরের রামগঞ্জ উপজেলার ইছাপুর ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনীত চেয়ারম্যান প্রার্থী শাহনাজ আক্তারকে পরিবর্তনের দাবিতে সংবাদ সম্মেলন করা হয়েছে। বুধবার দুপুরে ইছাপুর ইউনিয়ন পরিষদের সামনে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ ও অঙ্গ সংগঠনের ব্যানারে এ আয়োজন করা হয়। ২ নভেম্বরের মধ্যে প্রার্থী পরিবর্তন করে আওয়ামী লীগের কোনো নেতাকর্মীকে প্রার্থী না দেওয়া হলে গণপদত্যাগ করার ঘোষণা দেওয়া হয়। এ সময় বক্তব্য রাখেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি আমির হোসেন খান, ইছাপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি নুর মোহাম্মদ খান, সহ-সভাপতি অলি উল্লাহ, সাধারণ সম্পাদক এসআই ফারুক। এর মধ্যে আমির হোসেন, নুর মোহাম্মদ ও ফারুক দলীয় মনোনয়ন প্রত্যাশী ছিলেন।
সাহিম/বা.বি

  • আমাদের ইউটিউব পেজ ভিজিট করতে লগইন করুনঃ Grameen news24 Tv

এ জাতীয় আরো সংবাদ
এক ক্লিকে বিভাগের খবর