সংবাদ শিরোনাম :
সংবাদ শিরোনাম :
গাইবান্ধার সাদুল্লাপুরে বিদ্রোহী প্রার্থী হওয়ায় বহিস্কার ১১ – গ্রামীন নিউজ২৪ ভারতীয় ট্রাক থেকে হেলপারের মরদেহ উদ্ধার – গ্রামীন নিউজ২৪ দেশে বেড়েই চলছে করোনা শনাক্তের সংখ্যা – গ্রামীন নিউজ২৪ ‘সংবিধান অনুযায়ী দ্রুত নির্বাচন কমিশন গঠন করতে হবে রাষ্ট্রপতি – গ্রামীন নিউজ২৪ টাঙ্গাইলে ৬০২ বোতল ফেন্সিডিল ও ভূয়া সংবাদিকসহ ২ জনকে আটক করেছে র‌্যাব-১২ – গ্রামীন নিউজ২৪ কোস্ট গার্ডের অভিযানে ৬২ বোতল বিদেশী বিয়ার ক্যান ও মদ জব্দ – গ্রামীন নিউজ২৪ ঠাকুরগাঁও জেলা পুলিশের শীতবস্ত্র বিতরণ – গ্রামীন নিউজ২৪ উপকুলীয় জনপদ কয়রায় প্রথম বারের মতো চাষ হচ্ছে সুপার ফুৃড কিনোয়া – গ্রামীন নিউজ২৪ মোংলায় ঠান্ডায় রোগে আক্রান্ত হচ্ছে শিশুরা – গ্রামীন নিউজ২৪ শাবিপ্রবি ভিসির পদত্যাগের দাবিতে আন্দোলনে নেমেছেন শিক্ষার্থীরা – গ্রামীন নিউজ২৪
বিজ্ঞপ্তি :
গ্রামীন নিউজ২৪টিভি পরিবারের জন্য দেশব্যাপী প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে। যোগ্যতা এইচ এসসি পাশ, অভিজ্ঞতাঃ ১ বৎসর, আগ্রহীরা যোগাযোগ করুন 01729188818, সিভি ইমেইল করুনঃ grameennews24tv@gmail.com

ইভ্যালির সিইও গ্রাহকদের অর্থ অত্মসাত করতে জেনে শুনেই প্রতারণা করেছে – গ্রামীন নিউজ২৪

ব্যাবসা বানিজ্য ডেস্কঃ / ১২৫১ বার পঠিত
প্রকাশের সময় : শুক্রবার, ১৭ সেপ্টেম্বর, ২০২১, ৮:৩০ অপরাহ্ন

ই-কমার্স প্রতিষ্ঠান ইভ্যালির ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) মোহাম্মদ রাসেল গ্রাহকদের অর্থ অত্মসাত করতে জেনে শুনেই প্রতারণা করেছে বলেছেন র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়নের (র‌্যাব) আইন ও গণমাধ্যম শাখার পরিচালক কমান্ডার খন্দকার আল মঈন।

আজ শুক্রবার (১৭ সেপ্টেম্বর) কাওরানবাজার র‌্যাব মিডিয়া সেন্টারে এক ব্রিফিংয়ে তিনি এ কথা বলেন।

কমান্ডার খন্দকার আল মঈন জানান, রাসেলের ব্যবসায়িক অপকৌশলের মধ্যে অন্যতম হলো নতুন গ্রাহকের ওপর দায় চাপিয়ে পুরনো গ্রাহকদের আংশিক অর্থ বা পণ্য ফেরত দেওয়া। যার তার এই দায় ট্রান্সফারের দুরভীসন্ধিমূলক অপকৌশল চালিয়ে তিনি এভাবে প্রতারণা করে আসছিলেন। প্রতিষ্ঠানটির নেটওয়ার্কে যত গ্রাহক তৈরি হয় তার দায় ততই বাড়তে থাকে।

তিনি জানান, সাভারে মোহাম্মদ রাসেলের কয়েক কোটি টাকার সম্পত্তি রয়েছে বলে তিনি র‌্যাবের কাছে স্বীকার করেছেন। তবে তার কোম্পানি হাজার কোটি টাকার দেনায় ডুবে আছে। এসব দেনা কী করে পরিশোধ করবেন তার কোনো সদুত্তর দিতে পারেননি রাসেল।

র‌্যাব কমান্ডার আরও জানান, ইভ্যালি নানা প্রলোভনের মাধ্যমে মানুষের সঙ্গে প্রতারণা করেছে। দেশীয় বা আন্তর্জাতিক প্রতিষ্ঠানের কাছে দায়সহ ইভ্যালিকে বিক্রি অথবা দেউলিয়া ঘোষণার পরিকল্পনা ছিল রাসেলের।

র‌্যাব জানায়, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে রাসেল জানিয়েছে, বিদেশি একটি ই-কমার্সের কৌশল ১:২ আলোকে প্রথমে তিনি তার ইভ্যালির কার্যক্রম শুরু করেন। প্রথমে তিনি একটি ব্র্যান্ড তৈরির পরিকল্পনা করেছিলেন। পরবর্তী সময় কোনো আন্তর্জাতিক বা দেশীয় বড় প্রতিষ্ঠানে তার কোম্পানি দায়সহ বিক্রি করে দেওয়ার একটি পরিকল্পনা ছিল তার। একইভাবে তিন বছর পূর্ণ হলেই শেয়ার মার্কেটে অন্তর্ভূক্তি হওয়ার পরিকল্পনা ছিল। সর্বশেষ দায় মেটাতে না পারলে নিজেকে দেউলিয়া ঘোষণা করার একটি পরিকল্পনা নিয়েছিলেন তিনি।

র‌্যাব জানায়, ইভ্যালি ছাড়াও রাসেলের আরও কয়েকটি প্রতিষ্ঠান রয়েছে। এর মধ্যে ই-ফুড, ই-খাত ও ই-বাজার অন্যতম। সুত্রঃ বাসস
সাহিম/বা.বি

  • আমাদের ইউটিউব পেজ ভিজিট করতে লগইন করুনঃ Grameen news24 Tv

এ জাতীয় আরো সংবাদ
এক ক্লিকে বিভাগের খবর