সংবাদ শিরোনাম :
সংবাদ শিরোনাম :
উপকূলে আঘাত হেনেছে ঘূর্ণিঝড় রেমাল – গ্রামীন নিউজ২৪ আচরণবিধি লঙ্ঘনের দায়ে ঈশ্বরদীর চেয়ারম্যান প্রার্থী রানা সরদারের প্রার্থীতা বাতিল – গ্রামীন নিউজ২৪ শিক্ষকের অনিয়ম ও দুর্নীতির বিরুদ্ধে এলাকাবাসীর মানববন্ধন – গ্রামীন নিউজ২৪ ডুবে যাওয়ার তিনদিন পর যুবকের ভাসমান মরদেহ উদ্ধার – গ্রামীন নিউজ২৪ ধেয়ে আসছে রেমাল, সন্ধ্যায় অতিক্রম করতে পারে যেসব এলাকা – গ্রামীন নিউজ২৪ গাইবান্ধা-পলাশবাড়ী সড়কে বাস খাদে নিহত ১ – গ্রামীন নিউজ২৪ ঘূর্ণিঝড় রেমাল: চট্টগ্রাম বন্দরের সব কাজ বন্ধ, ওঠা-নামা হচ্ছে না ফ্লাইটও – গ্রামীন নিউজ২৪ মরদেহ এখনো উদ্ধার হয়নি, তবে কাজ অনেকদূর এগিয়েছে – গ্রামীন নিউজ২৪ ১২ ফুটের অধিক জলোচ্ছ্বাসের শঙ্কা, ১০ নম্বর মহাবিপদ সংকেত – গ্রামীন নিউজ২৪ ৬০৩ বোতল ভারতীয় ফেন্সিডিলসহ মাদককারবারি আটক – গ্রামীন নিউজ২৪
বিজ্ঞপ্তি :
গ্রামীন নিউজ২৪টিভি পরিবারের জন্য দেশব্যাপী প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে। যোগ্যতা এইচ এসসি পাশ, অভিজ্ঞতাঃ ১ বৎসর, আগ্রহীরা যোগাযোগ করুন 01729188818, সিভি ইমেইল করুনঃ grameennews24tv@gmail.com। স্বল্প খরচে সাপ্তাহিক, মাসিক, বাৎসরিক চুক্তিতে আপনার প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিতে যোগাযোগ করুন ০১৭২৯১৮৮৮১৮

গাইবান্ধার ফুলছড়িতে টিকাদান কেন্দ্রে শিক্ষার্থীদের মারামারি – গ্রামীন নিউজ২৪

স্টাফ রিপোর্টারঃ / ১৮২৭ বার পঠিত
প্রকাশের সময় : রবিবার, ১৩ ফেব্রুয়ারি, ২০২২, ৮:৪৬ অপরাহ্ণ
  • Print
  • গাইবান্ধার ফুলছড়িতে করোনার দ্বিতীয় ডোজের টিকা নিতে আসা ছাত্রীকে উত্যক্তের ঘটনায় শিক্ষার্থীদের মধ্যে মারামারিতে অন্তত ৫ শিক্ষার্থী আহত হয়েছে। আহতদের মধ্যে বুড়াইল মডেল স্কুল এন্ড কলেজের শিক্ষার্থী জিয়াম মিয়া (১৯) মাথায় গুরুতর আঘাত পেয়ে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছে। রোববার (১৩ ফেব্রæয়ারী) সকালে ফুলছড়ি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স কেন্দ্রে এ ঘটনা ঘটে। পরে পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

     

     

     

     

     

    জানা গেছে, আজ রোববার (১৩ ফেব্রুয়ারী) উপজেলার ৮টি প্রতিষ্ঠানের আড়াই হাজার শিক্ষার্থীকে করোনার দ্বিতীয় ডোজের টিকা গ্রহনের জন্য ফুলছড়ি উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিস থেকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স টিকাদান কেন্দ্রে পাঠানো হয়। প্রতিষ্ঠানগুলো হচ্ছে, ফুলছড়ি সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়, বুড়াইল মডেল স্কুল এন্ড কলেজ, ফুলছড়ি সিনিয়র আলিম মাদরাসা, ছালুয়া ফজলে রাব্বী বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়, উদাখালী উচ্চ বিদ্যালয়, চন্দিয়া মহিলা কলেজ, আলগার চর নি¤œ মাধ্যমিক বিদ্যালয়, পারুল মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়। সকালে এসব স্কুলের শিক্ষার্থীরা টিকাদান কেন্দ্রে গাদাগাদি করে লাইনে সারিবদ্ধ হয়ে দাঁড়ায়। এসময় ছাত্রীদেরকে উত্যক্ত করার অভিযোগে ফুলছড়ি সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়, উদাখালী উচ্চ বিদ্যালয় ও বুড়াইল মডেল স্কুল এন্ড কলেজের শিক্ষার্থীদের মধ্যে বাকবিতন্ডা ও মারামারি শুরু হয়। এক পর্যায়ে শিক্ষার্থীরা কাঠ খড়ি নিয়ে একে অপরকে ধাওয়া করে। এসময় উদাখালী উচ্চ বিদ্যালয়ের কয়েকজন শিক্ষার্থী বুড়াইল মডেল স্কুল এন্ড কলেজের শিক্ষার্থীদের মারপিট করে। এতে বুড়াইল স্কুল এন্ড কলেজের জিয়াম মিয়া (১৯) নামের এক শিক্ষার্থীর মাথা ফেটে রক্তাক্ত হয়ে গুরুতর আহত হন। তাৎক্ষণিক তাকে জরুরী বিভাগে চিকিৎসা দিয়ে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করানো হয়। এ ঘটনায় আরও অন্তত ৫জন শিক্ষার্থী আহত হয়েছে। আহত জিয়াম উদাখালী ইউনিয়নের পূর্ব ছালুয়া গ্রামের মুসা মিয়ার পুত্র।

     

     

     

    টিকা নিতে আসা কয়েকজন শিক্ষার্থী জানান, স্থানীয় উদাখালী উচ্চ বিদ্যালয়ের এক ছাত্র লাইনে দাঁড়িয়ে থাকা এক ছাত্রীকে জোরপূর্বক ফুল ও পুতুল দিয়ে উত্যক্ত করে। এ ঘটনার প্রতিবাদ করলে উত্যক্তকারীদের সাথে প্রথমে ফুলছড়ি সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী ও পরে বুড়াইল মডেল স্কুল এন্ড কলেজের শিক্ষার্থীদের সাথে বাকবিতন্ডায় হয়। এক পর্যায়ে তাদের মধ্যে মারামারি শুরু হয়। এসময় উদাখালী উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা কাঠখড়ি দিয়ে আগত শিক্ষার্থীদের মারপিট করে। তাদের আঘাতে বুড়াইল মডেল স্কুল এন্ড কলেজের শিক্ষার্থী জিয়াম মিয়ার (১৯) মাথা ফেটে যায় এবং মোত্তালেব হোসেন, বাঁধন মিয়া সহ আরও কয়েকজন আহত হয়। শিক্ষার্থীদের অভিযোগ টিকাদান কেন্দ্রে ছেলেমেয়ে এক সাথে লাইনে দাঁড় করানোর কারণে এ বিশৃঙ্খলার সৃষ্টি হয়েছে।

     

     

     

     

    এদিকে খবর পেয়ে ফুলছড়ি থানার উপ-পুলিশ পরিদর্শক শাহজাহান আলী সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। পরবর্তীতে আবারও টিকাদান শুরু হয়।

     

     

     

     

     

     

    এ ব্যাপারে ফুলছড়ি উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. রফিকুজ্জামান বলেন, ‘উপজেলার ৮টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের আড়াই হাজার শিক্ষার্থীকে রোববার করোনার দ্বিতীয় ডোজের টিকার জন্য শিক্ষা অফিস থেকে পাঠানো হয়। টিকাদানের বিষয়টি সংশ্লিষ্ট সবাইকে অবগত করা হয়েছে। এতগুলো শিক্ষার্থীকে হাসপাতাল থেকে নিয়ন্ত্রণ করা কষ্টকর। এরইমধ্যে অনাকাঙ্খিতভাবে শিক্ষার্থীদের মধ্যে দ্বন্দ হয়েছে। পরবর্তীতে পুনরায় যাতে টিকাকেন্দ্রে বিশৃঙ্খলা না হয় সেজন্য সতর্ক থাকা হবে।’


    এ জাতীয় আরো সংবাদ
    • আমাদের ইউটিউব পেজ ভিজিট করতে লগইন করুনঃ Grameen news24 Tv
    এক ক্লিকে বিভাগের খবর