সংবাদ শিরোনাম :
সংবাদ শিরোনাম :
যারা দেশের ভাবমূর্তি নষ্ট করতে চায়, তাদেরকে রুখে দিতে হবে পার্বত্য প্রতিমন্ত্রী – গ্রামীন নিউজ২৪ বাংলাদেশ ও ঘানা ব্যবসা-বাণিজ্য বাড়াতে সম্মত – গ্রামীন নিউজ২৪ মির্জাপুরে ট্রাক চালক খুনের মুল পরিকল্পনাকারীসহ ৬ ডাকাত গ্রেপ্তার – গ্রামীন নিউজ২৪ আলোচিত রফিকুল ইসলাম মাদানীকে ওয়াজের অনুমতি না দেওয়ায় পুলিশ ফাঁড়িতে হামলা ও ভাঙচুর – গ্রামীন নিউজ২৪ দেশি পণ্যের প্রতি বিদেশিদের আকর্ষণ বাড়াতে হবে: বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী – গ্রামীন নিউজ২৪ প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ দ্বিতীয় ধাপের ফল প্রকাশ – গ্রামীন নিউজ২৪ মধুখালীতে ১১১টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শহীদ মিনার নাই – গ্রামীন নিউজ২৪ গাইবান্ধায় ইয়াবাসহ আটক ১ – গ্রামীন নিউজ২৪ সাংবাদিকের ওপর হামলার প্রতিবাদে কুষ্টিয়ায় মানববন্ধন – গ্রামীন নিউজ২৪ ২১ বিশিষ্ট ব্যক্তির হাতে একুশে পদক তুলে দিলেন প্রধানমন্ত্রী – গ্রামীন নিউজ২৪
বিজ্ঞপ্তি :
গ্রামীন নিউজ২৪টিভি পরিবারের জন্য দেশব্যাপী প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে। যোগ্যতা এইচ এসসি পাশ, অভিজ্ঞতাঃ ১ বৎসর, আগ্রহীরা যোগাযোগ করুন 01729188818, সিভি ইমেইল করুনঃ grameennews24tv@gmail.com। স্বল্প খরচে সাপ্তাহিক, মাসিক, বাৎসরিক চুক্তিতে আপনার প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিতে যোগাযোগ করুন ০১৭২৯১৮৮৮১৮

ঠাকুরগাঁও সদর হাসপাতালে জনবল সঙ্কট, করোনা পরীক্ষা করাতে না পেরে ফিরে যাচ্ছেন রোগীরা – গ্রামীন নিউজ২৪

মোঃ মজিবর রহমান শেখ, ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধিঃ / ৬৬৭ বার পঠিত
প্রকাশের সময় : বুধবার, ৭ জুলাই, ২০২১, ৯:২২ পূর্বাহ্ণ
  • Print
  • ঠাকুরগাঁও আধুনিক সদর হাসপাতালে প্রতিদিন শত শত রোগীর ভিড় বাড়ছে। এদের বেশিরভাগই করোনা উপসর্গ নিয়ে আসছেন। তবে পরীক্ষা করাতে না পেরে হতাশ হয়ে ফিরে যেতে হচ্ছে তাদের। সদর হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে, হাসপাতালে দিনে ৬০ থেকে ৮০ জন রোগীর করোনা পরীক্ষা করা হচ্ছে। এতে প্রতিদিন প্রায় করোনা উপসর্গ নিয়ে আসা শতাধিক রোগীকে পরীক্ষা ছাড়াই ফিরে যেতে হচ্ছে। কর্তৃপক্ষ বলছে, জনবল সঙ্কটের কারণে ফিরিয়ে দিতে হচ্ছে রোগীদের।

    বুধবার (৭ জুলাই) করোনা পরীক্ষা করাতে এসে ফিরে যেতে দেখা যায়, গ্রামের মামুন অর রশিদ কে । তিনি সাংবাদিকগণ কে বলেন, ‘বেলা ১১টায় এসেছি। আধাঘণ্টা দাঁড়িয়ে থেকে টোকেন নিয়েছি। এরপর ডাক্তার দেখিয়ে পরীক্ষা করাতে আসি। এখন তারা কাল আসতে বলছেন। বিষয়টি আমাদের জন্য অনেক ভোগান্তির।’ ব্যবসায়ী আব্দুল কাদের বলেন, ‘কাল এসে ফিরে গেছি। আজও ফিরে যেতে হচ্ছে। পরীক্ষা করতে আসতেই আমি অসুস্থ হয়ে যাচ্ছি। সম্ভব নয়। যাই হবে হোক। আমি আর পরীক্ষা করাতে আসব না।’

    দেশের উত্তর সীমান্তের ঠাকুরগাঁও জেলায় প্রতিনিয়ত বাড়ছে করোনা রোগীর সংখ্যা। সেই মোতাবেক বাড়ছে করোনা পরীক্ষার চাপ। এ চাপ সামাল দিতে হিমশিম খেতে হচ্ছে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষকে। হাসপাতাল সূত্র বলছে, এপ্রিল-মে মাসে সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে থাকলেও জুন মাসে বেড়েছে ১৫ গুণ। ঠাকুরগাঁও জেলায় এ পর্যন্ত তিন হাজার ৮৬৫ জনের শরীরে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। এর মধ্যে ১ জুন থেকে ৭ জুলাই পর্যন্ত শনাক্ত হয়েছে দুই হাজার ৪৭৭ জন। শুরু থেকে মৃত ৯৫ জনের মধ্যে জুন মাসেই মারা গেছেন ৪৭ জন। করোনায় সংক্রমণ ও মৃত্যু—এ দুই সূচকেই জুন মাস করোনা পরিস্থিতির বিগত ১৪ মাসকে ছাড়িয়ে গেছে। এই অবস্থায় সঠিকভাবে করোনা পরীক্ষা করা না গেলে পরিস্থিতি আরও বেগতিক হতে পারে বলে মনে করছেন স্থানীয়রা। ঠাকুরগাঁও জেলার বিশিষ্ট গবেষক ও প্রবীণ সাংবাদিক আব্দুল লতিফ বলেন, করোনা পরীক্ষা না করে এভাবে যদি রোগীদের ফেরত দেয়া হয়, তাহলে সাধারণ মানুষের মাঝে করোনা পরীক্ষার প্রতি অনীহা সৃষ্টি হবে। এমনটা হলে ঠাকুরগাঁও জেলার জন্য সামনে অনেক ভয়ঙ্কর একটি সময় অপেক্ষা করছে। এ বিষয়ে ঠাকুরগাঁও সদর হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক নাজিরুল ইসলাম চপল সাংবাদিকগণকে বলেন, ঠাকুরগাঁও জেলায় দিন দিন করোনা রোগী বৃদ্ধি পাচ্ছে। কিন্তু সেই অনুপাতে জনবল বাড়ানো সম্ভব হয়নি। হাসপাতালে জনবল সঙ্কট রয়েছে। সে কারণে সঠিকভাবে করোনা পরীক্ষা করা যাচ্ছে না।’

    তিনি আরও বলেন, ‘রোগীদের পরীক্ষা ছাড়াই ফিরিয়ে দেয়ার বিষয়টিতে আমরাও চিন্তিত। কিন্তু এক্ষেত্রে আমরা সম্পূর্ণ নিরূপায়।’


    এ জাতীয় আরো সংবাদ
    • আমাদের ইউটিউব পেজ ভিজিট করতে লগইন করুনঃ Grameen news24 Tv
    এক ক্লিকে বিভাগের খবর