সংবাদ শিরোনাম :
সংবাদ শিরোনাম :
মাদারীপুর এক্সপ্রেসওয়েতে বাস-ট্রাকের সংঘর্ষে নিহত ৫ – গ্রামীন নিউজ২৪ আটঘরিয়ায় সড়ক দূর্ঘটনায় হেলপার নিহত – গ্রামীন নিউজ২৪ প্রতারনার মামলায় যুবলীগ নেত্রী রিমান্ডে – গ্রামীন নিউজ২৪ পুরাতন জজ কোর্টের জায়গা দখল-বেদখল কথিত লীজ প্রক্রিয়ার আইনগত বৈধতা নিয়ে গাইবান্ধার বিশিষ্ট রাজনীতিবিদদের বিবৃতি – গ্রামীন নিউজ২৪ পরিবেশ অধিদপ্তরের পরিচালকের স্ত্রীসহ রহস্যজনক মৃত্যু – গ্রামীন নিউজ২৪ খতনার সময় অতিরিক্ত রক্তক্ষরণ শিশুর অবস্থার অবনতি – গ্রামীন নিউজ২৪ সোনার খনি ধসে নিহত ২৩ – গ্রামীন নিউজ২৪ তানোর শহীদ মিনার থেকে ফেরার পথে আ.লীগ কর্মী খুন – গ্রামীন নিউজ২৪ পলাশবাড়ীতে ফেন্সিডিলসহ গ্রেফতার ২ মাদককারবারী – গ্রামীন নিউজ২৪ মহান শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে মধুখালীতে বিভিন্ন কর্মসূচী পালিত – গ্রামীন নিউজ২৪
বিজ্ঞপ্তি :
গ্রামীন নিউজ২৪টিভি পরিবারের জন্য দেশব্যাপী প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে। যোগ্যতা এইচ এসসি পাশ, অভিজ্ঞতাঃ ১ বৎসর, আগ্রহীরা যোগাযোগ করুন 01729188818, সিভি ইমেইল করুনঃ grameennews24tv@gmail.com। স্বল্প খরচে সাপ্তাহিক, মাসিক, বাৎসরিক চুক্তিতে আপনার প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিতে যোগাযোগ করুন ০১৭২৯১৮৮৮১৮

আটঘরিয়ায় ১১২ হেক্টর জমিতে ফুল কপির চাষ – গ্রামীন নিউজ২৪

ইব্রাহীম খলীল, আটঘরিয়া (পাবনা) প্রতিনিধি: / ১৪৫০ বার পঠিত
প্রকাশের সময় : বুধবার, ১৫ ডিসেম্বর, ২০২১, ২:০৫ অপরাহ্ণ
  • Print
  • অন্যান্য সবজির চেয়ে ফুলকপি ও বাঁধাকপির পুষ্টিগুণ অনেক বেশি। আটঘরিয়ায় কপি চাষে ঝুঁকেছেন স্থানীয় কৃষকরা। আবহাওয়া অনুকুলে থাকায় ক্ষেতে ফলনও হয়েছে বাম্পার। তাই কপি চাষে লাভের আশা করছেন তারা। উপজেলার একদন্ত ইউনিয়নের হেদাসখোল গ্রামের কপি চাষি সাইদুল জানান, অন্য ফসলের চেয়ে কপি চাষে খরচ ও খাটুনি দুটিই কম। ধান চাষে যেমন খরচ তেমনি রোপনের পর থেকে নানা দুঃচিন্তায় থাকতে হয়। তাই ধানের বদলে আগাম কপি সবজিচাষে ঝুঁকছেন তারা।

     

     

     

    এরমধ্যে পাতাকপি ও ফুলকপি এখন মুখ্য ফসল। এই মৌসুমে অনাবাদি ও উঁচু শ্রেণির জমিতে আগাম কপি চাষে ব্যস্ত সময় পার করছেন তারা। মাচা পদ্ধতির মাধ্যমে আশ্বিন মাসে চারা তৈরি করেন কৃষক। এরপর আশ্বিনের মাঝামাঝি ও কার্তিকের প্রথম থেকেই কপির আবাদ শুরু করেন।

     

     

     

    একই গ্রামের কৃষক বাজু খন্দকার বলেন, চলতি মৌসুমে আমি আমার ২ বিঘা জমিতে কপির আবাদ করছি । কিছু দিনের মধ্যে কপিতে ফুল আসবে বলে আশা করছি । এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ধান আবাদ করে লাভ তো দুরের কথা খরচের টাকা তুলতেই হিমশিম খেতে হয়।

     

     

     

    একই গ্রামের আরেক কৃষক বলেন, বিঘা প্রতি কপি চাষে খরচ ১৫ হাজার টাকা। প্রতি বিঘায় কপি উৎপাদন হয় ৮০ থেকে ৮৫ মণ। এতে সার, বীজ, কিষান, (শ্রমিক) হাল, নিড়ানি, পরিবহন খরচ (১৫ হাজার টাকা) বাদে লাভ থাকবে ৩০-৩৫ হাজার টাকা।

     

     

     

    উজেলা কৃষি কমকর্তা সজীব আল মারুফ জানান, ফুল কপি আমাদের দেশের একটি জনপ্রিয় ফসল। কৃষকের জন্য লাভজনক। বিশেষ করে রবি মৌসুম এবং রবি মৌসুমের আগের এগুলা আবাদ করে কৃষক। সিজোনাল ফুলকপি আছে তার চেয়ে দ্বিগুন লাভ করে এই কপি। এই মুহূত্বে আটঘরিয়া উপজেলায় ১১২ হেক্টর জমিতে ফুল কপির চাষ হয়েছে। ফুল কপির জাত গুলো বেশী ভাগই হাইব্রীট জাতের হওয়ার কারনে তুলনা মূলক ভাবে দেশী জাতের চেয়ে ফলন অনেক বেশী হয়।

     

     

    বর্তমানে ফুলকপির ব্যাপক চাহিদা রয়েছে এবং কৃষক ভালো দামও পাচ্ছে। আমাদের এখানকার যে ফুলকপি উৎপাদিত হচ্ছে তার বেশী ভাগই যাচ্ছে ঢাকাতে। যার কারনে কৃষকেরা এগুলো বিক্রয় নিয়ে কোন অসুবিধায় পড়ছে না। জমি থেকেই কৃষক এটা বিক্রয় করতে পারছে। আমরা আশা করি যে, আগামীতে আমাদের উচ্চ মূল্যের ফসলের মধ্যে ফুলকপি বাঁধাকপি এই ফসলগুলা আরোও বেশী চাষ হবে। আমরা সবসময় কৃষকদের কে উচ্চ মূল্যের সবজি চাষে উদ্বুদ্ধ করি। কীটনাশক এর ব্যবহার কমিয়ে আমরা আমাদের উৎপাদন টাকে অব্যাহত রাখতে পারি। সে প্রযুক্তি কৃষকের মাঝে আমরা দিচ্ছি।

     

     

     

    নিরাপদ ফসল উৎপাদনে টেকনোলজি যেমন টেরামনসার জৈব্য কীটনাশক এইগুলো ব্যাবহারের জন্য আমরা কৃষকদের সহায়তা এবং পরামর্শ দিয়ে যাচ্ছি। তিনি আরোও বলেন, ফুলকপিতে সাধারণত ফুলপঁচা রোগটা মাঝে মাঝে দেখা যায়। বিভিন্ন জৈব বালাইন্যাশক আছে যেমন- ট্রাইফোগ্রাম গুলো এস্প্রে করি তাহলে এই সমস্যা চলে যাবে। কপিতে শোড়ল পোকার আক্রমণটা বেশী হয়। বিভিন্ন ধরনের থেরামন দিয়েও এগুলো আমরা নিয়ন্ত্রণ করতে পারি। কৃষকের ঘরে এই ফসল উঠতে বীজতলা থেকে শুরু করে ৯০ দিন পর্যন্ত সময় লাগে। কপির বর্তমান বাজার সম্পর্কে তিনি বলেন, বিঘা প্রতি ৩০ থেকে ৩৫ হাজার টাকা খরচ বাদে কৃষকের থাকবে।

     

     

     

    ওই এলাকার মাটি কপি চাষের জন্য উপযোগী। কৃষকদের আগ্রহ দিনের পর দিন বাড়ছে। এতে কৃষকের মুখে হাসি ফুটছে।


    এ জাতীয় আরো সংবাদ
    • আমাদের ইউটিউব পেজ ভিজিট করতে লগইন করুনঃ Grameen news24 Tv
    এক ক্লিকে বিভাগের খবর